শরণখোলায় প্রভাষকসহ নকল চক্রের ৮ জনকে আটক ও জরিমানা

এপ্রিল ১০, ২০১৭

আপনি দেখছেন: দেশের খবর >> প্রধান খবর, বাগেরহাট, শিক্ষা-সংস্কৃতি, স্থানীয় >> শরণখোলায় প্রভাষকসহ নকল চক্রের ৮ জনকে আটক ও জরিমানা

বাগেরহাট প্রতিনিধি: বাগেরহাটের শরণখোলায় চলতি এইচএসসি ও আলিম পরীক্ষায় নকল সরবরাহে সহযোগিতার দায়ে প্রভাষকসহ আট জনকে আটক করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মীর আলিফ রেজার নেতৃত্বে একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসার সাবেক সুপার মাওঃ আঃ ওহাবের বাসায় অভিযান চালান।

শরণখোলায় প্রভাষকসহ নকল চক্রের ৮ জন।

এ সময় উত্তরপত্র এবং একাধিক গাইড বইসহ রাজৈর আলিম মাদ্রাসার ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক জেসমিন আক্তারকে (৩৮) তার সাত সহযোগীসহ আটক করা হয়। তখন প্রশ্নপত্র সরবরাহকারী ইমরান হোসেন (১৮) নামে ওই মাদ্রাসার অপর এক শিক্ষার্থী পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় পাবলিক পরীক্ষা অপরাধ আইন ১৯৮০/৯ ধারায় আটককৃতদের মধ্যে জেসমিন আক্তারকে ৩০ হাজার ও আলিম ১ম বর্ষের শিক্ষার্থী তামান্না আক্তার (১৭), সুলতানা সিদ্দিকা (১৭), তানিয়া আক্তার (১৮), জান্নাতুল ইসলাম (১৭), ফারজানা আক্তার (১৭), তামান্না ইসলামকে (১৭) ১০ হাজার টাকা ও জোবায়ের হাওলাদারকে (১৭) ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তিন মাসের কারাদণ্ড প্রদান করেন ভ্রাম্যমান আদালত।

ঘটনাস্থল থেকে উত্তরপত্রসহ একাধিক গাইড বই জব্দ করা হয় এবং পালিয়ে যাওয়া ইমরানের (১৮) বিরুদ্ধে শরণখোলা থানায় নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়েছে। আটককৃতরা জানায়, পরীক্ষার শুরুতেই সকাল ১০.৩০ মিনিটের দিকে রবিউল নামের এক আলিম পরীক্ষার্থী মোবাইলে প্রশ্নপত্রের ছবি তুলে তা ওই চক্রের মোবাইলের মেসেঞ্জারে পাঠায়। পরবর্তীতে ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক জেসমিন আক্তারের সহায়তায় সাবেক ওই মাদ্রাসা সুপারের বাসায় বসে উত্তরপত্র তৈরি করে নিয়মিত পরীক্ষার হলে সরবরাহ করে আসছিল তারা।

উল্লেখ্য, নকলে বাধা দেয়ার ঘটনায় গত ৪ এপ্রিল মঙ্গলবার সকালে কক্ষ পরিদর্শক তাফালবাড়ী নেছারুল উলুম ফাজিল মাদ্রাসার সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক মোঃ নাসরুল্লাহকে রায়েন্দা রাজৈর আলিম মাদ্রাসার কতিপয় বখাটে ছাত্র ব্যাপক মারপিট করে গুরুতর আহত করে। পরে তাকে শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *