কলার বাগানে সাথী ফসল হলুদ লাগিয়ে লাভবান ঈশ্বরদীর বাঘা বিশ্বাস

স্বপন কুমার কুন্ডু, ঈশ্বরদী (পাবনা): ঈশ্বরদীর ছলিমপুর ইউনিয়নের বক্তারপুর গ্রামের মরহুম সাদি বিশ্বাসের ছেলে কৃষি খামারের মালিক হাসিবুর রহমান বাঘা বিশ্বাস কলা বাগানে সাথী ফসল হিসেবে হলুদ লাগিয়ে লাভবান হয়েছেন। তিনি তার তিন বিঘা জমিতে কলা বাগানের সারির ফাঁকা জায়গায় লাগিয়েছন হলুদ। বাগানের কলা গাছগুলো হয়েছে যেমনি পুষ্ট, তেমনি হলুদেরও ব্যাপক ফলন হয়েছে। বাঘা বিশ্বাস নিজ খামারে সাথী ফসল করে এলাকার অন্যান্যদেরও খামারে সাথী ফসল চাষাবাদে উৎসাহিত করছেন।

ishwardi-311016

কলাবাগানে সাথী ফসল হলুদ লাগিয়ে লাভবান ঈশ্বরদীর বাঘা বিশ্বাস।

বাঘা বিশ্বাস জানান, উপজেলা কৃষি অফিসের পরামর্শে কলা বাগানের সাথে সাথী ফসল করে একই জমিতে তিনি দুইটি ফসল পাবেন। তিনি আরো বলেন, আমাদের দেশে অনেক চাষিই কলার বাগান করে থাকেন। কলা গাছের সারিতে জমিতে অনেক জায়গা ফাঁকা পরে থাকে। এই ফাঁকা জায়গায় সাথী ফসল হিসেবে অনেক কিছুই লাগানো যায়। আর সাথী ফসল করলে বাড়তি মুনাফা লাভ করা যায়। আগামীতে তাঁর খামারটি প্রসারিত করে এলাকার বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করার ইচ্ছের কথা তিনি জানিয়েছেন। চাকরির পেছনে না ঘুরে এভাবে বাগান করেই স্বাবলম্বী হওয়া সম্ভব। এতে বেকারত্ব ঘুচবে এবং আর্থিকভাবে লাভবান হওয়া যায় বলে তিনি মনে করেন।

ঈশ্বরদী উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা কৃষিবিদ এ এ মাসুম বিল্লাহ জানান, বক্তারপুরের হাসিবুর রহমান বাঘা বিশ্বাস কলা বাগানে সাথী ফসল হিসেবে হলুদ লাগিয়ে লাভবান হয়েছেন। কলা বাগানে সাথী ফসল করে বাঘা বিশ্বাস এখন ঈশ্বরদীর একজন মডেল চাষি হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছেন। বাঘা বিশ্বাস একই জমি থেকে পাবেন কলা, সেই সাথে বাড়তি ফসল হিসেবে পাবেন অর্থকরী ফসল হলুদ। এভাবে তাঁর খামারের কার্যক্রম চালিয়ে যেতে পারলে আগামীতে আরও ভালো করবেন বলে কৃষি কর্মকর্তা আশা পোষণ  করেন।

Be the first to comment on "কলার বাগানে সাথী ফসল হলুদ লাগিয়ে লাভবান ঈশ্বরদীর বাঘা বিশ্বাস"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.