তৃণমূল মানুষের স্বাস্থ্যসেবায় কমিউনিটি ক্লিনিক রোল মডেল: দিনাজপুরে ইইউ’র রাষ্ট্রদূতগণ

রতন সিং, দিনাজপুর: “ভিজিট বাংলাদেশ” সূচিতে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পাঁচ দেশের রাষ্ট্রদূতগণ দিনাজপুরে কমিউনিটি ক্লিনিক, লিচুর বাগান ও জাতীয় উদ্যান রামসাগর পরিদর্শন করেছেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী বিদেশী অতিথিদের সাথে ছিলেন। এ সময় রাষ্ট্রদূতগণ তৃণমূল পর্যায়ে স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়ার ক্ষেত্রে কমিউনিটি ক্লিনিককে রোল মডেল হিসেবে উল্লেখ করেন।

বুধবার দুপুরে দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার খামারপাড়া ইউনিয়নের হকেরহাটে অবস্থিত কমিউনিটি ক্লিনিক পরিদর্শনে আসেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের পাঁচটি দেশের রাষ্ট্রদূতগণ। তারা হচ্ছেন ইইউ এর রাষ্ট্রদূত ও প্রতিনিধি দলের প্রধান মি. পিয়েরি মায়াউডোন, জার্মানির রাষ্ট্রদূত মি. ড. থমাস হেইনরিচ প্রিনজ, নেদারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত মিসেস লিওনি কুয়েলেনাক, ব্রিটিশ হাইকমিশনার মিজ এলিসন ব্ল্যাক এবং ডেনমার্কের রাষ্ট্রদূত মি. মাইকেল হেমনিটি উইনথার এবং ব্রিটিশ হাইকমিশনের চিফ প্রটোকল অফিসার একেএম ফজলুল হক। পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী পাঁচ দেশের রাষ্ট্রদূতদের নিয়ে সকালে সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণের পর তাদেরকে নিয়ে নীলফামারীর উত্তরা ইপিজেড পরিদর্শন করেন।

খানসামার কমিউনিটি ক্লিনিক পরিদর্শনকালে তৃণমূল পর্যায়ে স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়ার বর্তমান সরকারের উদ্যোগে সন্তুষ্ট হয়ে রাষ্ট্রদূতগণ বলেন, সাধারণ মানুষের বিশেষ করে প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলের অসহায় ও দরিদ্র মানুষের চিকিৎসা সুবিধা প্রদানে কমিউনিটি ক্লিনিক একটি রোল মডেল উদ্যোগ।

এ সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ৯৬ সালে সরকার গঠনের পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গ্রামের মানুষের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতের জন্য কমিউনিটি ক্লিনিক প্রকল্পের মাধ্যমে যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত নেন। দেশের প্রায় সবকটি ইউনিয়নে একটি করে কমিউনিটি ক্লিনিকে সরকার ওষুধ ও টেকনিশিয়ান দিয়ে সাধারণ মানুষের চিকিৎসা সেবা দিলেও ২০০১ সালে জামায়াত-বিএনপি জোট সরকার ক্ষমতায় এসে সাধারণ মানুষের এই মহতী প্রকল্প বন্ধ করে দেন।

তিনি বলেন, ২০০৮ সালে শেখ হাসিনার সরকার পুনরায় ক্ষমতায় এসে বন্ধ হওয়া কমিউনিটি ক্লিনিকগুলো চালু করেন। সরকার প্রত্যেকটি ক্লিনিকে ৩১ প্রকারের প্রয়োজনীয় ওষুধ সরবরাহ করার পাশাপাশি মাতৃসেবা কার্যক্রমের অংশ হিসেবে নবজাতক প্রসবের ব্যবস্থা করেছেন। এর ফলে গ্রামের প্রত্যন্ত অঞ্চলের অসহায়, দরিদ্র ও সাধারণ মানুষ চিকিৎসা সেবা পাচ্ছেন হাতের নাগালে।

বুধবার বিকেলে প্রতিনিধিদলটি দিনাজপুর সদর উপজেলার মাসিমপুরে একটি লিচু বাগান এবং জাতীয় উদ্যান রামসাগর পরিদর্শন করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.